পেটের মেদ শারীরিক সৌন্দর্য অনেকটাই নষ্ট করে দেয়। এছাড়া অতিরিক্ত মেদ শারীরিক বিভিন্ন রোগের ঝুঁকিও বাড়ায়। বিশেষ করে পেটের মেদ যত বাড়তে থাকে ততই ডায়াবেটিস, উচ্চ রক্তচাপ কিংবা হৃদরোগে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বাড়ে।
যদিও ভুঁড়ি কমানো ততটা সহজ কাজ নয়, তবে শরীরচর্চা ও খাদ্যাভ্যাস পরিবর্তনের মাধ্যমে পেটের অতিরিক্ত মেদ কমানো সম্ভব। কর্মব্যস্ত জীবনে এখন অনেকেরই শরীরচর্চার সময় থাকে না। তারা চাইলে পেটের মেদ কমাতে ঘরেই কয়েকটি ব্যায়াম করতে পারেন।
পেটের চর্বি গলাতে চাইলে ঘরেই আপনি ৫টি ব্যায়াম করতে পারেন। এক্ষেত্রে আপনার মোট সময় লাগবে মাত্র ১০ মিনিট। হাতে সময় থাকলে বেশিক্ষণও করতে পারেন। চলুন তবে জেনে নিন কীভাবে ও কোন কোন ব্যায়াম আপনার পেটের মেদ কমাবে-

বাইসাইকেল ক্রাঞ্চেস

এই ব্যায়াম করতে প্রথমে একটি মাদুরের উপর শুয়ে পড়ুন। মাথার পেছনে আপনার হাত দু’টি রাখুন। এবার একটি পা বুকের কাছে আনুন ও অন্যপাশের হাতের কনুই দিয়ে পায়ের হাটু স্পর্শ করার চেষ্টা করুন।
এরপর অন্য পায়ের ক্ষেত্রেও একই ভঙ্গিমা অনুসরণ করুন। এভাবেই বারবার পা ও হাত বদলান ও ব্যায়ামটি একটানা ২ মিনিট করুন। চাইলে ১ মিনিট করে ৩০ সেকেন্ড বিরতি নিয়ে আবারও ১ মিনিট করতে পারেন।

টরসো টুইস্ট

প্রথমে সোজা হয়ে দাড়ান। এবার উপরের শরীরকে অর্থাৎ কোমরের উপরের অংশ একবার ডান দিকে মোচড় দিন, তারপর আবার সোজা হয়ে বাম দিকে পুনরাবৃত্তি করুন। ১৫ বার করে তিন সেটে করুন এই ব্যায়াম।
ঘরে যদি এক বা দুই কেজির ডাম্বেল থাকে, তাহলে সেগুলো হাতে ধরেও এই ব্যায়াম করতে পারে। কোমরের অতিরিক্ত মেদ কমাতে খুবই কার্যকরী ও সহজ এই ব্যায়াম নিয়মিত করলে তবেই ফল পাবেন।

লাংস

এই ব্যায়াম করার জন্য প্রথমে সোজা হয়ে দাড়ান। তারপর এক পা পেছনে নিন ও সামনের পা অর্ধেক ভাঁজ করুন।
পেছনের হাঁটু মাটি থেকে প্রায় ৩ ইঞ্চি উঁচুতে রাখতে হবে। এই ব্যায়ামের তীব্রতা বাড়াতে হাতে হালকা ওজনের ডাম্বেল নিতে পারেন।

প্ল্যান্ক

এই ব্যায়াম করার জন্য প্রথমে উপুর হয়ে শুয়ে পড়ুন। তারপর দু’হাত ও পায়ের আঙুলের ভরে পুরো শরীরকে উঁচু করে তুলে ধরুন।
যদিও এই ব্যায়াম বেশ কষ্টকর, তবে এর কার্যকারিতা অনেক। ১০-২০ সেকেন্ডের জন্য করুন, পরবর্তীতে সময় আরও বাড়ান।

বার্ড ডগ

প্রথমে হাঁটুতে ভর দিয়ে বসুন। তারপর দু’হাত মাটিতে রাখুন হামাগুড়ির মতো করে। তারপর একটি পা উঁচু করে তুলে ধরুন ও অন্যপাশের হাতটিও সামনে তুলে ধরতে হবে কয়েক সেকেন্ডের জন্য। একইভাবে অন্য পা ও হাত তুলে ধরে এই বার্ড ডগ ব্যায়ামটি করুন কয়েকবার।
এই ব্যায়ামগুলো আপনার পেটের মেদ কমানোর পাশাপাশি শরীরের স্ট্যামিনা ও দক্ষতা বাড়াতেও কাজ করবে। তবে মেদ কমাতে চাইলে প্রতিদিন অন্তত ১০ মিনিটের জন্য হলেও এই ব্যায়ামগুলো করতে হবে।

সূত্র: টাইমস অব ইন্ডিয়া