কাতারভিত্তিক আন্তর্জাতিক টেলিভিশন চ্যানেল আল জাজিরা সম্প্রচারিত ‘অল দ্য প্রাইম মিনিস্টার মেন’ শিরোনামের অনুসন্ধানী প্রতিবেদনটি সম্পর্কে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, এটি তথ্যভিত্তিক নয়, হলুদ সাংবাদিকতা।

বুধবার (৩ ফেব্রুয়ারি) রাজধানীর হাতিরঝিল এলাকায় পুলিশ প্লাজা কনকর্ডে নৌ-পুলিশের বঙ্গবন্ধু কর্নার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এ মন্তব্য করেন।

আল জাজিরার প্রতিবেদনের বিষয়ে জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, ‘আমাদের পররাষ্ট্রমন্ত্রী, আইএসপিআর ওই প্রতিবেদনের জবাব দিয়েছেন। প্রতিবেদনটি তথ্যভিত্তিক নয়। এটা হলুদ সাংবাদিকতা। এগুলো সাংবাদিকতার নর্মসের ভেতরে পড়ে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘আমি মনে করি, যারা এটা করেছে তাদের একটি উদ্দেশ্য ছিল। সে উদ্দেশ্য নিয়ে তারা এ ধরনের ঘটনা ঘটিয়েছেন। আমরা মনে করি এগুলো ভিত্তিহীন এবং দেশবিরোধী একটি ষড়যন্ত্রের বহিঃপ্রকাশ।’

ভেজাল মদ খেয়ে বিভিন্ন স্থানে মানুষের মৃত্যুর বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে আসাদুজ্জামান খান বলেন, ‘কিছু অসাধু ব্যবসায়ী, যারা এগুলো করে, তারা অনেক সময় ভেজাল মিশ্রিত করে। বিগত দিনগুলোর দিকে তাকান, তাহলে দেখবেন অনেক সময় এ ধরনের ঘটনা ঘটেছে। ডিবি পুলিশ তাদের শনাক্ত করেছে। কোথায় কীভাবে ভেজাল হচ্ছে, তাদের ধরে ফেলেছে।’

মিয়ানমারে সেনাবাহিনীর ক্ষমতা দখলের বিষয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘মিয়ানমার কী করছে সেটা তাদের অভ্যন্তরীণ বিষয়। মিয়ানমারে আগেও সামরিক শাসন ছিল। পরে সরকার বদলালেও সামরিক নিয়ন্ত্রণ একটা ছিল, সেটাও আমরা দেখেছি। সেই শাসকদের কতখানি ক্ষমতা ছিল সেটা আমাদের বোধগম্য ছিল না।’

তিনি আরও বলেন, সরকার বিষয়টি সতর্কতার সঙ্গে পর্যবেক্ষণ করছে। সীমান্তে কড়া পাহারা দেয়া হচ্ছে। সীমান্তরক্ষীরা সতর্ক রয়েছে।

মন্ত্রী বলেন, যারা পূর্বে অনুপ্রবেশ করেছেন, তারা তো করেছেনই। নতুন করে কেউ যেন ঢুকতে না পারেন, সে বিষয়ে আমাদের নজরদারি আছে।