ঢাকা,শুক্রবার, ১৩ মার্চ ২০১৫, ২৯ ফাল্গুন ১৪২১, ২১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৬

অ্যান্ড্রয়েড,আইফোন নাকি উইন্ডোজ?

Rate this item
(0 votes)

বিশ্বজুড়ে নানা ক্ষেত্রে চলছে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা, স্মার্টফোনের ক্ষেত্রেও এর ব্যতিক্রম নেই। অ্যান্ড্রয়েড, আইফোন আর উইন্ডোজফোনের মধ্যে ত্রিমুখী প্রতিদ্বন্দ্বিতা এখন স্মার্টফোনের বাজারে।
স্মার্টফোন কেনার জন্য কারও কাছে পরামর্শ চাইলে অভিজ্ঞতা থেকে তিনি তাঁর পছন্দের স্মার্টফোনটিই কেনার পরামর্শ দেবেন। কিন্তু তাঁরপরও স্মার্টফোন কিনতে গেলে অনেকেরই মন খুঁতখুঁত করে। অ্যান্ড্রয়েড, আইফোন নাকি উইন্ডোজ?
সম্প্রতি প্রযুক্তি বিষয়ক ওয়েবসাইট ম্যাশেবলের প্রযুক্তি বিশ্লেষকেরা

তিনটি স্মার্টফোনের কিছু ফিচারের কথা জানিয়েছেন যা আপনার পছন্দের পণ্যটি কিনতে সহায়ক হতে পারে। প্রযুক্তি বিশ্লেষকেরা বলেন, স্মার্টফোনের ক্ষেত্রে ব্যক্তিবিশেষে পার্থক্য রয়েছে। যাঁরা অ্যান্ড্রয়েড কেনেন; তাঁরা মনে করেন যে, ওপেন সোর্স অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে অ্যান্ড্রয়েডেই সুবিধা বেশি। স্মার্টফোনের বাজারে সবচেয়ে জনপ্রিয় অপারেটিং সিস্টেম অ্যান্ড্রয়েডনির্ভর স্মার্টফোন তৈরি করে স্যামসাং, সনি, এলজি থেকে শুরু করে নামকরা অনেক স্মার্টফোন নির্মাতা প্রতিষ্ঠান। গুগল প্লে স্টোরসহ অনুসন্ধান সেবাদাতা গুগলের নানা সুবিধা নিতে অ্যান্ড্রয়েডই ভালো।

অন্যদিকে, অ্যাপ্লিকেশন গ্রহণযোগ্যতার মানের দিক থেকে আইফোনকেই পছন্দ করেন অনেকেই। অনেকে অবশ্য এ দুটি অপারেটিং সিস্টেমের তুলনা করতে নারাজ। অ্যান্ড্রয়েডকে বেশি মাত্রার ভাইরাস ঝুঁকির কারণ হিসেবে দেখে আইফোনের ভক্ত অনেকেই। অনেকেই অ্যাপলের উদ্ভাবনী ক্ষমতা ও এর পণ্যের অনন্য বৈশিষ্ট্যের কথা বিবেচনা করে আইফোনই কেনেন।

বর্তমানে অ্যাপ্লিকেশন সংখ্যার হিসেবে গুগলের প্লে স্টোর ও অ্যাপ স্টোরের মধ্যে রয়েছে তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতা।

অ্যাপ্লিকেশনের ব্যবহার-বান্ধব বৈশিষ্ট্যকে ভিত্তি ধরলে অনেকেই আবার অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপকে অপেক্ষাকৃত সহজ মনে করেন। ফায়ারফক্স, অপেরা, ক্রোম অ্যান্ড্রয়েডেই ব্যবহার-বান্ধব। ডাটা শেয়ারিংয়ের দিক থেকেও অনেকে পছন্দ করেন অ্যান্ড্রয়েডকেই। এদিকে, আইফোন পছন্দের কারণ হতে পারে এর ছোটখাটো গড়নের জন্য। আইফোন ৫ সবচেয়ে বড় মাপের হলেও এটির মাপ মাত্র চার দশমিক ৮৭ ইঞ্চি যার তুলনায় আন্ড্রয়েডনির্ভর এইচটিসি ওয়ানের মাপ পাঁচ দশমিক ৪১ ইঞ্চি বা গ্যালাক্সি এস ফোরের মাপ পাঁচ দশমিক ৩৮ ইঞ্চি।

প্রযুক্তি বিশ্লেষকেরা বলছেন, আইফোন ও অ্যান্ড্রয়েডের পাশাপাশি ক্রেতাদের পছন্দের তালিকায় স্থান করে নিচ্ছে উইন্ডোজনির্ভর স্মার্টফোন। উইন্ডোজনির্ভর স্মার্টফোনের বাজারে প্রতিনিধিত্ব করছে নকিয়া। উইন্ডোজ ফোন কেনার বিষয়ে প্রযুক্তি বিশ্লেষকেদের ভাষ্য, স্মার্টফোনের অভিজ্ঞতাকে আরও ব্যবহার-বান্ধব করতে পারে মাইক্রোসফটের উইন্ডোজ ফোন ৮ অপারেটিং সিস্টেমটি। উইন্ডোজ ফোনে আইফোনের তুলনায় বেশ কিছু অনন্য ফিচার রয়েছে যা স্মার্টফোন ক্রেতাদের সহায়ক হতে পারে। আইফোনে দেখানো স্থির আইকনগুলোর পরিবর্তে উইন্ডোজ ফোনে রয়েছে ‘লাইভ টাইলস’ যা অ্যাপ্লিকেশনের রিয়েল টাইম আপডেট দেখাতে পারে। উইন্ডোজ ফোন ব্যবহারকারীরা বেশ কিছু অনন্য সুবিধা পান যা আইফোন বা অ্যান্ড্রয়েড ব্যবহারকারীরা পান না। লাইভ টাইলসগুলো কাস্টোমাইজ করার সুযোগ রয়েছে। টাইলসগুলোর আকার পরিবর্তন করার সুবিধা থাকায় ব্যবহারকারীর জন্য সুবিধা হয়। এ ছাড়া নকিয়ার তৈরি লুমিয়া সিরিজের বড় মাপের স্মার্টফোন স্ক্রিন সমর্থন করে উইন্ডোজ ফোন ৮।

তবে স্মার্টফোন কেনার আগে কাজের ধরন ও প্রয়োজনীয়তার কথা মাথায় রেখে স্মার্টফোন কেনা উচিত বলেই পরামর্শ দিয়েছেন  প্রযুক্তি বিশ্লেষকেরা।

 
বর্তমানে বাজারের সেরা পাঁচটি স্মার্টফোন

এইচটিসি ওয়ান

গ্যালাক্সি এস ফোর

আইফোন ৫

নকিয়া লুমিয়া ৯২০

সনি এক্সপেরিয়া জেড

 
স্মার্টফোন কেনার আগে

১. দ্রুতগতির প্রসেসরযুক্ত স্মার্টফোন কিনুন।

২. যে স্মার্টফোনে র্যাম বেশি সেটি কিনবেন।

৩. যে স্মার্টফোনে ইন্টারনাল মেমোরি বেশি সেটি আপনার জন্য উপযোগী।

৪. ডিসপ্লে রেজুলেশন, ক্যামেরা, সেন্সর, ব্যাটারির ক্ষমতাসহ নেটওয়ার্ক সমর্থনের বিষয়গুলো যাচাই করুন।

৫. সার্ভিস ও ওয়ারেন্টির বিষয় নিশ্চিত হয়ে স্মার্টফোন কেনা ভালো।