ঢাকা,শুক্রবার, ১৩ মার্চ ২০১৫, ২৯ ফাল্গুন ১৪২১, ২১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৬

Saturday, 08 March 2014 02:08

ফাইনালে নাদাল ও জোকোভিচ

Rate this item
(0 votes)

রেকর্ড সপ্তমবারের মতো ফ্রেঞ্চ ওপেন শিরোপা জিততে আর একটি মাত্র জয় প্রয়োজন রাফায়েল নাদালের। ৪৩ বছর পর টেনিস ইতিহাসের তৃতীয় খেলোয়াড় হিসেবে টানা চারটি গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপা জয়ের পথে নোভাক জোকোভিচেরও আর একটি জয়ই প্রয়োজন। রোববার ফ্রেঞ্চ ওপেনের পুরুষ এককের ফাইনালে এই দুই টেনিস তারকার যে কোন একজনের স্বপ্ন পূরণ হতে চলেছে।

ক্লে-কোর্টের রাজা নাদাল ফ্রেঞ্চ ওপেনে অপ্রতিরোধ্য। এই নিয়ে টানা পঞ্চমবারের মতো প্রতিযোগিতাটির ফাইনালে খেলবেন তিনি। অন্য দিকে গত বছর টেনিসে যে অবিশ্বাস্য দৌড় শুরু

করেছিলেন জোকোভিচ তা থেমে ছিলো এই ফ্রেঞ্চ ওপেনেই। সেবার সেমিফাইনালে রজার ফেদেরারের কাছে হেরে যাওয়ায় জোকোভিচের টানা ৪৩টি ম্যাচে অপরাজিত থাকার দৌড় থেমেছিলো।

গতবারের হারের প্রতিশোধ এবার নিলেন র‌্যাংকিংয়ের শীর্ষে অবস্থান করা জোকোভিচ। ড্র এর পরই বোঝা গিয়েছিলো সব ঠিকঠাক থাকলে আবারো সেমিফাইনালে রেকর্ড ১৬টি গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপার মালিক ফেদেরারের মুখোমুখি হবে তিনি।
শুক্রবার দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ফেদেরারকে দাঁড়াতেই দেননি জোকোভিচ। ৬-৪, ৭-৫, ৬-৩ গেমে ফেদেরারকে হারিয়ে প্রথমবারের মতো ফ্রেঞ্চ ওপেনের ফাইনালে উঠে গেছেন সার্বিয়ান এই টেনিস তারকা।
নাদাল আরো সহজ জয় পেয়েছেন। প্রথম সেমিফাইনালে স্বদেশী ডেভিড ফেরারকে ৬-২, ৬-২, ৬-১ গেমে উড়িয়ে দেন ক্লে-কোর্টের রাজা নাদাল। রোলাঁ গারোঁতে এটা নাদালের ৫১তম জয়। এর বিপরীতে মাত্র একবারই হেরেছিলেন স্পেনের এই টেনিস তারকা। ২০০৯ সালে চতুর্থ রাউন্ডে রবিন সোদারলিংয়ের কাছে হেরে গিয়েছিলেন তিনি।

শুক্রবার বৃষ্টি বিঘিœত রোলাঁ গারোঁ তে পা পিছলে পড়ে গিয়েছিলেন নাদাল।

এদিকে মেয়েদের দ্বৈতে শিরোপা জিতেছেন ইতালির সারা ইরানী ও রবার্তা ভিঞ্চি জুটি। রাশিয়ার মারিয়া কিরিলেঙ্কো ও নাদিয়া পেত্রোভা জুটিকে ৪-৬, ৬-৪, ৬-২ গেমে হারান তারা।
শনিবার মেয়েদের এককের ফাইনালও খেলবেন ইরানী। সেখানে তিনি মুখোমুখি হবেন ৩টি গ্র্যান্ড স্লাম শিরোপার মালিক মারিয়া শারাপোভার।