ঢাকা,শুক্রবার, ১৩ মার্চ ২০১৫, ২৯ ফাল্গুন ১৪২১, ২১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৬

Thursday, 27 February 2014 21:09

সৌদি আরবের জন্য পরমাণু বোমা তৈরির খবর ভুয়া

Rate this item
(0 votes)

সৌদি আরবের জন্য পারমাণবিক বোমা বানাচ্ছে পাকিস্তান—এমন খবর উড়িয়ে দিয়েছে ইসলামাবাদ। গত বৃহস্পতিবার পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় দাবি করে, এ ধরনের খবর ‘ভিত্তিহীন, ভুয়া ও উসকানিমূলক’।


বৃহস্পতিবার বিভিন্ন সূত্রের বরাত দিয়ে বিবিসি নিউজনাইটের খবরে বলা হয়েছিল, পাকিস্তানের পারমাণবিক অস্ত্র প্রকল্পে সৌদি আরব বিনিয়োগ করেছে। দেশটি থেকে পারমাণবিক বোমা নিতে পারে রিয়াদ। এর প্রতিবাদ জানিয়ে পাকিস্তানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র আইজাজ চৌধুরী বিবিসি উর্দুকে বলেন, পাকিস্তান নির্ভরযোগ্য পারমাণবিক শক্তিধর দেশ।
আইজাজ আরও বলেন, তাঁর দেশের পারমাণবিক প্রকল্প আন্তর্জাতিক মানের। আন্তর্জাতিক শক্তি সংস্থার (আইএইএ) শর্ত মেনে চলে ইসলামাবাদ। পারমাণবিক অস্ত্র নিয়ন্ত্রণের কঠোর পদ্ধতি অনুসরণ করে। এসব অস্ত্রের নিরাপত্তার ব্যবস্থাও নিশ্চিত করে সরকার।
বিবিসি নিউজনাইটের কূটনৈতিক ও প্রতিরক্ষাবিষয়ক সম্পাদক ওই প্রতিবেদনের বস্তুনিষ্ঠতার পক্ষে যুক্তি দিয়ে বলেন, নাম প্রকাশ না করার শর্তে জাতিসংঘের একজন কূটনীতিক চলতি বছরের শুরুর দিকে তাঁকে বিষয়টি জানিয়েছিলেন। ওই কূটনীতিকের কাছে এমন কিছু তথ্য-উপাত্ত ছিল, যাতে দেখা যায় যে সৌদি আরবে সরবরাহের জন্য কিছু পারমাণবিক বোমা পাকিস্তানে প্রস্তুত রাখা হয়েছিল। বোমাগুলো পাকিস্তানেই তৈরি করা।
নিউজনাইটের প্রতিবেদনে ইসরায়েলের সাবেক সামরিক গোয়েন্দাপ্রধান আমোস ইয়াদলিনের এক সংবাদ সম্মেলনের কথাও উল্লেখ করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে আমোস বলেছিলেন, ইরান পারমাণবিক বোমা তৈরি করলে সৌদি আরবও তা সংগ্রহ করবে। এ জন্য এক মাসও অপেক্ষা করবে না তারা।
মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার পারমাণবিক অস্ত্রবিস্তার রোধবিষয়ক সাবেক উপদেষ্টা গ্যারি স্যামোর বোমা কেনাবেচার সম্ভাবনা উড়িয়ে দিয়ে বলেছেন, সৌদি আরব-পাকিস্তান এমন সুসম্পর্ক নেই।
পাকিস্তানের পারমাণবিক প্রকল্পের বিষয়ে দীর্ঘদিন ধরেই আগ্রহী সৌদি আরব। ১৯৯৯ সালে তৎকালীন সৌদি প্রতিরক্ষামন্ত্রী প্রিন্স সুলতান পাকিস্তানের কাহুটা পারমাণবিক প্রকল্প পরিদর্শনে গেলে তখনকার প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ তাঁকে অভ্যর্থনা জানিয়েছিলেন। ওই বছরই পারভেজ মোশাররফ তাঁকে ক্ষমতাচ্যুত করলে নওয়াজ দীর্ঘদিন সৌদি আরবে ছিলেন।