ঢাকা,শুক্রবার, ১৩ মার্চ ২০১৫, ২৯ ফাল্গুন ১৪২১, ২১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৬

Friday, 28 February 2014 19:42

এশিয়ার কাছ থেকে শিখুন

Rate this item
(0 votes)

ব্রিটেনের স্বাস্থ্যমন্ত্রী জেরেমি হান্ট আজ (শুক্রবার) একটি অনুষ্ঠানে ব্রিটিশ পরিবারগুলোকে বলবেন, তাঁদের উচিত বয়োবৃদ্ধ আত্মীয়কে কাছে রেখে এশিয়ার জনগণের উদাহরণ অনুসরণ করা, যাতে ওই বৃদ্ধ মানুষগুলো আর একাকিত্বে দিন না কাটান। স্বাস্থ্যমন্ত্রী শুক্রবার তাঁর বক্তব্যে বলবেন, এশিয়ার সংস্কৃতিতে বয়োজ্যেষ্ঠ আত্মীয়ের প্রতি শ্রদ্ধা ও অনুভূতি দেখে তিনি ধাক্কা খেয়েছেন। এশিয়ার দেশগুলোতে ধরেই নেওয়া হয় যে ভবিষ্যতে দাদা-দাদিরা

একা বৃদ্ধাশ্রমে না থেকে বরং সন্তান ও নাতি-নাতনিদের সঙ্গে বসবাস করবেন। স্বাস্থ্যমন্ত্রী তাঁর ভাষণে আরো বলবেন, ওই দেশগুলোতে আবাসিক আশ্রম শেষ ভাবনা, প্রথম ভাবনা নয়। এশিয়ার দেশগুলোতে সামাজিক ব্যবস্থা এতটা শক্তিশালী হওয়ার কারণ, শিশুরা ছোটবেলা থেকে দেখে থাকে, তাদের দাদা-দাদিদের কিভাবে দেখাশোনা করা হয় এবং তাদের মধ্যেও এ ধারণা জন্মে যে তারাও বৃদ্ধ বয়সে একই রকম সেবা পাবে। স্বাস্থ্যমন্ত্রী জেরেমি হান্টের স্ত্রীও জাপানি।
তিনি বলবেন, বৃদ্ধ হয়ে যাওয়া সমাজের সমস্যা যদি তাঁরা মোকাবিলা করতে চান, তাহলে অবশ্যই তাঁদের এই সংস্কৃতি থেকে শিক্ষা নিতে হবে। প্রজন্মগুলোর মধ্যে সামাজিক কনট্যাক্ট পুনরুদ্ধার করে তাকে আরো শক্তিশালী করে তুলতে হবে। যদিও বলা বিব্রতকর কিন্তু বলতে হয়, এই পরিবর্তন আনা সম্ভব কেবল আমাদের মা-বাবা ও দাদা-দাদির সঙ্গে আচরণে পরিবর্তন আনার মধ্য দিয়েই।