ঢাকা,শুক্রবার, ১৩ মার্চ ২০১৫, ২৯ ফাল্গুন ১৪২১, ২১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৬

আফগানিস্তানে ড্রোনের সংখ্যা দ্বিগুণ করবে যুক্তরাজ্য

Rate this item
(0 votes)

আফগানিস্তানে তদারকি ও যৌথ অভিযান পরিচালনায় ব্যবহৃত অস্ত্রসজ্জিত চালক বিহীন বিমানের (ড্রোন) সংখ্যা দ্বিগুণ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যুক্তরাজ্য।

নতুন আরো পাঁচটি ড্রোন যোগ হয়ে দেশটিতে মোতায়েন মোট ব্রিটিশ ড্রোনের সংখ্যা হবে দশটি।

চালকবিহীন আকাশযানগুলোর একটি নতুন স্কোয়াড্রনের পাঁচটি রিপার ড্রোন শিগগিরই আফগানিস্তানে পাঠানো হবে। ছয় সপ্তাহের মধ্যে ড্রোনগুলোকে অভিযানে নামানো হবে।

যে বিমানবন্দর থেকে এগুলো উড়বে সেখান থেকে এগুলো নিয়ন্ত্রণ করা হলেও প্রথমবারের মতো এর অভিযানের দৃশ্য

যুক্তরাজ্যে দেখানো হবে বলে জানিয়েছে পত্রিকাটি।

গার্ডিয়ান আরো জানিয়েছে, ইংল্যান্ডের এক সামরিক ঘাঁটির উচ্চ প্রযুক্তির একটি কেন্দ্র থেকে নিয়ন্ত্রণ করে ড্রোনগুলিকে আফগানিস্তানে পাঠনো হবে।

সম্প্রতি এই ড্রোনগুলো যুক্তরাষ্ট্র থেকে কিনেছে যুক্তরাজ্য।

আফগানিস্তানের দক্ষিণপশ্চিমের হেলমান্দ প্রদেশে বিদ্রোহীদের বিরুদ্ধে আফগানিস্তানে মোতায়েন যুক্তরাজ্য সেনাবাহিনীর পাঁচটি ড্রোন এখন ব্যবহার করা হচ্ছে। এগুলো যুক্তরাষ্ট্রের নেভাদার এক বিমান ঘাঁটি থেকে পরিচালিত হয়। কারণ ড্রোন চালানোর মতো প্রযুক্তি এতোদিন যুক্তরাজ্যের ছিল না।

২০১৪ সালে আফগানিস্তান থেকে ন্যাটোর সেনা প্রত্যাহারের পরও ড্রোনগুলো আফগানিস্তানে মোতায়েন রাখা হবে কি না, যুক্তরাজ্য সরকার এখনও সে বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি।