ঢাকা,শুক্রবার, ১৩ মার্চ ২০১৫, ২৯ ফাল্গুন ১৪২১, ২১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৬

Wednesday, 05 March 2014 14:20

সারাবিশ্বের শীর্ষ ১০ চলচ্চিত্র উৎসব

Rate this item
(0 votes)

উটাহ, যুক্তরাষ্ট্র (বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/রয়টার্স)-সারাবিশ্বে বিভিন্ন সময় বিভিন্ন চলচ্চিত্র উৎসবের আয়োজন করা হয়। এর মধ্যে কিছু কিছু উৎসব বিশ্ববিখ্যাত। বিশ্বখ্যাত সেই চলচ্চিত্র উৎসবগুলোর মধ্যে শীর্ষ দশটি উৎসবের পরিচিতি নিচে তুলে ধরা হলো।

সানদানস চলচ্চিত্র উৎসব, পার্ক সিটি, উটাহ, যুক্তরাষ্ট্র

হলিউড থেকে উটাহর দিকে চিত্রপরিচালকদের আকৃষ্ট

করতে ১৯৭৮ সালে উটাহর সানদানসে চলচ্চিত্র উৎসব শুরু হয়। ৩৪ বছর পর এখন এটি যুক্তরাষ্ট্রের সবচেয়ে বড় চলচ্চিত্র উৎসবে পরিণত হয়েছে। এতে ফিচারফিল্ম, প্রামাণ্যচিত্র, স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ও অ্যানিমেশন প্রদর্শন করা হয়। আগামী ১৯ জানুয়ারি উটাহ’র পার্ক সিটিতে এ চলচ্চিত্র উৎসব শুরু হবে। ২৯ জানুয়ারি পর্যন্ত উৎসবটি চলবে। এ উৎসবে ২শ’ চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে।

রটারড্যাম আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব, নেদারল্যান্ডস

পার্শ্ববর্তী আমস্টারডাম শহরের চেয়ে এ শহরে পর্যটক কম এলেও রটারড্যাম হলো আধুনিক ডাচ সংস্কৃতির উপস্থাপক। আর এখানকার বার্ষিক চলচ্চিত্র উৎসব মূলত সব ধারার সৃজনশীল ও চিন্তাশীল চলচ্চিত্রেরই পথ তৈরী করে দেয়। এ বছর ২৫ জানয়ারি-৫ ফেব্র“য়ারি পর্যন্ত এ উৎসব চলবে। ১৯টি ভেন্যুতে প্রায় সাড়ে তিন হাজার দর্শক সমাগম হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

কান চলচ্চিত্র উৎসব, কান, ফ্রান্স

আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত সবচেয়ে বিখ্যাত চলচ্চিত্র উৎসবের ভ্যেনু ফ্রান্সের কান। এখানে বিশ্বের সেরা সেরা চিত্রপরিচালকরা তাদের সা¤প্রতিক কাজ নিয়ে হাজির হন। আগামী ১৬-২৭ মে এ উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। শুধু আমন্ত্রিতরাই কান চলচ্চিত্র উৎসবে অংশ নিতে পারেন। তবে সাধারণ দর্শকরা অনুমতিপত্র সংগ্রহ করে ফ্রেঞ্চ রিভেরার প্রিস্টিন বিচে রাতে প্রদর্শিত চলচ্চিত্র উপভোগ করতে পারেন।

গুয়াদালাজারা চলচ্চিত্র উৎসব- গুয়াদালাজারা, মেক্সিকো

ল্যাটিন আমেরিকার সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ চলচ্চিত্র উৎসব হিসেবে এ উৎসবটি বিবেচিত। এ চলচ্চিত্র উৎসবে মেক্সিকো ও ল্যাটিন আমেরিকাসহ বিভিন্ন দেশের অনেক পরিচালকের চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হয়। এ উৎসবের কারণেই ল্যাটিন আমেরিকার চলচ্চিত্রগুলো বিশ্ব চলচ্চিত্র শিল্পের প্রতিযোগী হয়ে উঠেছে। আগামী ২-১২ মার্চ অনুষ্ঠিতব্য এ উৎসবে ২শ’ চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে। আর এতে ১ লাখেরও বেশি দর্শনার্থী যোগ দেবে বলে আশা করা হচ্ছে।

রুপটপ ফিল্মস- নিউ ইয়র্ক, যুক্তরাষ্ট্র

চলচ্চিত্র বিষয়ে সদ্য পাশ করা এক ছাত্রের বাড়ির ছাদে প্রদর্শিত চলচ্চিত্রের মধ্য দিয়ে ১৯৯৭ সালে এ উৎসব শুরু হয়। বর্তমানে এ উৎসব ম্যানহাট্টান ও ব্র“কলিনে ছড়িয়ে পড়েছে। মে-সেপ্টেম্বর মাসের সাপ্তাহিক ছুটিগুলোতে এ উৎসব চলে। চলতি ধরার বাইরের এ উৎসবটিও জায়গা করে নিয়েছে শীর্ষ দশের দলে।

টরোন্টো আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব- টরোন্টো, কানাডা

১৯৭৬ সালে শুরু হওয়া এ চলচ্চিত্র উৎসব বর্তমানে উত্তর আমেরিকার সবচেয়ে গুরুত্বপর্ণ ও প্রভাবশালী উৎসবে পরিণত হয়েছে। এ উৎসবে প্রদর্শিত চলচ্চিত্র অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডও (অস্কার) পেয়ে থাকে। এ বছর ৬-১৬ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত এ উৎসব চলবে।

ভেনিস আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব- ভেনিস, ইতালি

এ উৎসব বিশ্বের সবচেয়ে পুরোনো চলচ্চিত্র উৎসব। ১৯৩২ সালে এর শুরু। প্রতি বছর ভেনিসের লিডো দ্বীপে এটি অনুষ্ঠিত হয়। এবার ২৯ অগাস্ট-৮ সেপ্টেম্বরের এ উৎসবে ২৭৫ টিরও বেশি চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে।

হংকং ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল- হংকং, চীন

সারা বিশ্বের পর্যটকদের কাছে আকর্ষণীয় উৎসব হিসেবে পরিচিত হংকং’র চলচ্চিত্র উৎসব। এটি বিশ্বের অন্যতম বৃহৎ একটি উৎসব হিসেবে বিবেচিত হয়। উৎসবটি এশিয়ান চলচ্চিত্র ও বিশ্ব চলচ্চিত্র শিল্পের মধ্যে দূরত্ব কমিয়েছে। ৫০টি দেশের ৩৩০ টিরও বেশি চলচ্চিত্র নিয়ে চলতি বছরের ২১ মার্চ-৫ এপ্রিল উৎসবটি অনুষ্ঠিত হবে।

বার্লিন আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব- বার্লিন, জার্মানি

বার্লিনাল হিসেবে পরিচিত বার্লিন আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব শুরু হচ্ছে আগামী ৯ ফেব্র“য়ারি। ১০ দিন ধরে চলা এ উৎসবে ১১৫ টিরও বেশ দেশের দর্শকরা যোগ দেবেন।

ইস্ট ল্যান্ড ফিল্ম ফেস্টিভ্যাল- ইস্ট লন্ডন, যুক্তরাজ্য

লন্ডনের অন্যতম বৃহৎ চলচ্চিত্র উৎসব এটি। ২০১১ সালে এ উৎসবে ৩০টি দেশের ৬০ এরও বেশি ফিচার ফিল্ম ও কয়েক শ’ শর্ট ফিল্ম প্রদর্শিত হয়। চলতি বছরের ৩-৮ জুলাই এ উৎসব চলবে।

Last modified on Sunday, 09 March 2014 16:13